মেনু নির্বাচন করুন

দেউলী ইউনিয়নের ঝুনকাই গ্রামের কেন্দ্রীয় জামে সমজিদ

এই মসজিদটির কাজ যখন শুরু হয়েছিল তখন একটা ছোট ঘর যার বেড়া ছিল না শুধু চাল ছিল। আমি যখন একদম ছোট তখন এই  মসজিদটির নির্মান কাজ শুরু হয় কিন্তু এই নির্মান কাজ কিন্তু ইট বালু দিয়ে নয়? শুধু কাদা মাটি দিয়ে মেজে ছিল আর বাশের তৈরী বেড়া।  আর যখন আমরা এই মসজিদটিতে পড়তে যেতাম কায়দা পড়া তখন শুক্রুবার হওয়ার আগে আমরা এই মসজিদটির মেজে লেপে দিতাম মাটি দিয়ে। তখন এই মসজিদটির ইমান ছিল মওলানা মো: মকছেদ মোল্লা ,তার আচার আচারণ এত সুন্দর ছিল যা বলার মত না। তখন ১৯৯৮ সাল । তারপর এই মসজিদটি টিনের ঘর টি ভেঙ্গে ছাদ করার চিন্তা ভাবনা করা শুরু করল। কিন্তু  আর্থিক সহায়তার যোগান একজনের পক্ষে সম্ভব হবে না যার জন্য গ্রামের মাত্তাবরগণ মিলে সিদ্ধান্ত নিল আমরা প্রতিটি খানা প্রতি একটা নিদ্ষিট এমাউন্ট ধরব। পরে সবার সহযোগিতায় এই মসজিদটির কাজ শুর হল। একসময় পাকা হল তার পর আবার চিন্তা ভাবনা শুরু করল ছাদ করার এই ভাবে গ্রামের সকলে মিলে এই সমজিদটিকে সুন্দর করার জন্য সকলে মিলে ট্রাইজ করার চিন্তা ভাবনা শুরু করল। ২০১৪ সালে জুন মাসে শুরু করল ট্রাইজ করার কাজ। আজ এই মসজিদটি দেউলী ইউনিয়নের  মধ্যে খুবই সুন্দর মসজিদ হিসেবে পরিচিতি লাভ করল। অনেক লোক জন রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময় ছবি তুলৈ নিয়ে যায়। আর এই মসজিদটির পাশে রয়েছে  কবর স্থান কেন্দ্রীয় । আসলে কি ইচ্ছা থাকলে সবি সম্ভব আল্লাহুর রহমতে।  আল্লাহুর ঘর টি নির্মান করার জন্য যারা এই মহুৎত কাজে অংশগ্রহন করছেন তাদেরকে যেন মহান আল্লাহ তাআলা কাল কিয়ামতের ময়দানে অতিতাড়াতাড়ি বেহেশতে নসিব করেন মহান আল্লাহু তাআলা। আমিন।


Share with :

Facebook Twitter